Syed Anas Pasha

Syed Anas Pasha



 Print thisE-mail this

ব্রিটেনে ৫ শতাধিক ফোর্সড ম্যারেজ, বিব্রত বাংলাদেশি কমিউনিটি


সৈয়দ আনাস পাশা, লন্ডন করেসপন্ডেন্ট
বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
লন্ডন: ফোর্সড ম্যারেজের ঘটনা নিয়ে ব্রিটিশ হাউস অব লর্ডসে আবারও আলোচনায় উঠে এসেছে ব্রিটেনের বাংলাদেশি কমিউনিটি। ফোর্সড ম্যারেজ নামের সামাজিক ব্যাধি ব্রিটিশ মূলধারায় বাংলাদেশি কমিউনিটির জন্যে যে কতটুকু বিব্রতকর অবস্থা সৃষ্টি করেছে, তা বেরিয়ে এসেছে হাউজ অব লর্ডসের সাম্প্রতিক এক প্রশ্নত্তোর পর্বে।

হাউস অব লর্ডসে বাংলাদেশি কমিউনিটিতে ফোর্সড ম্যারেজের ঘটনা সম্পর্কে ব্যারোনেস পলা উদ্দিনের এক প্রশ্নের জবাবে জানানো হয়, গত সাড়ে তিন বছরে বাংলাদেশি কমিউনিটিতে ফোর্সড ম্যারেজের ঘটনা ঘটেছে প্রায় সাড়ে ৫ শতাধিক।

ফরেন অ্যান্ড কমনওয়েলথ বিভাগের ফোর্সড ম্যারেজ ইউনিট বাংলাদেশি কমিউনিটিতে ফোর্সড ম্যারেজের কতো সংখ্যক ঘটনা উদঘাটন করেছে---এ প্রশ্ন রাখেন ব্যারোনেস পলা। জবাবে ফরেন অ্যান্ড কমনওয়েলথ অফিসের পার্লামেন্টারি আন্ডার সেক্রেটারি লর্ড হেনরি জানান, বাংলাদেশি কমিউনিটিতে গত সাড়ে তিন বছরে সাড়ে ৫ শতাধিক ফোর্সড ম্যারেজের ঘটনা ঘটেছে।

তাঁর দেয়া তথ্য মতে, ২০০৯ সালে ব্রিটেনের বাংলাদেশি কমিউনিটিতে ফোর্সড ম্যারেজের ঘটনা ঘটেছে ১৬৮টি। ২০১০ সালে এই সংখ্যা বেড়ে দাঁড়ায় ১৭৯টিতে। ফরেন অ্যান্ড কমনওয়েলথ অফিসের পার্লামেন্টারি আন্ডার সেক্রেটারি লর্ড হেনরি হাউজ অব লর্ডসকে আরও জানান, ২০১১ ও ২০১২ সালে বাংলাদেশি কমিউনিটিতে ফোর্স ম্যারেজের সংখ্যা ছিল যথাক্রমে ১১৪ ও ৫৫।

সাড়ে তিন বছরে কমিউনিটিতে সাড়ে ৫শত ফোর্সড ম্যারেজের ঘটনা সরকারিভাবে রেকর্ড হওয়ায় ব্রিটেনের বাংলাদেশি কমিউনিটি বিব্রতকর অবস্থায় পড়েছে। এসব ঘটনা মূলধারায় বাংলাদেশি কমিউনিটির নেতিবাচক ইমেজই তুলে ধরছে বলে মন্তব্য করেছেন কমিউনিটির বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ। ‘ফোর্সড ম্যারেজ’--এর মতো সামাজিক ব্যাধি থেকে কমিউনিটিকে দ্রুত বের করে নিয়ে আসতে সামাজিক, সাংস্কৃতিক ও কমিউনিটি সংগঠনগুলোর ব্যাপক উদ্যোগের ওপর গুরুত্ব আরোপ করেছেন তারা।

উল্লেখ্য, বৃটেনের ফরেন অ্যান্ড কমনওয়েলথ অফিসের ফোর্সড ম্যারেজ ইউনিট ব্রিটেন এবং ব্রিটেনের বাইরে ব্রিটিশ নাগরিকদের ফোর্সড ম্যারেজ বন্ধে সহায়তা ও পরামর্শ দিয়ে থাকে। ২০১১ সালে ফোর্সড ম্যারেজ ইউনিট এ ধরনের ১৪৬৮টি  ঘটনায় সহায়তা প্রদান করেছে। এর মধ্যে ৬৬টি ঘটনায় প্রতিবন্ধীরাও ফোর্সড ম্যারেজের শিকার হন বলে জানা যায়।  এইসব প্রতিবন্ধীদের মধ্যে ৫৬জন শিক্ষা প্রতিবন্ধী, ৮ জন শারীরিক প্রতিবন্ধী এবং ২ জন একইসঙ্গে শারীরিক ও শিক্ষা প্রতিবন্ধী ছিলেন।

ফোর্সড ম্যারেজ ইউনিটের দেয়া পরিসংখ্যানে দেখা যায় ১৪৬৮ টি ঘটনায় শতকরা ৭৮ ভাগ ভিকটিমই হচ্ছেন মহিলা এবং ২২ ভাগ হচ্ছেন পুরুষ। ব্রিটেনের বাইরেও বিভিন্ন দেশে ব্রিটিশ হাইকমিশন এ ধরনের ঘটনায় ভিকটিমদের সহায়তা দিয়ে থাকে।

বাংলাদেশ সময়: ২০১৯ ঘণ্টা, ০৯ আগস্ট, ২০১২

0 comments:

Post a comment

Popular Posts