Syed Anas Pasha

Syed Anas Pasha

সমকাল: ৬ মে রওনা দেবেন শেখ হাসিনা ' : নির্বাচন নিয়ে রোডম্যাপ চাই তত্ত্বাবধায়ক সরকারের কাছে'

সৈয়দ আনাস পাশা, লন্ডন
লন্ডনে অবস্থানরত আওয়ামী লীগ সভানেত্রী ও সাবেক প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, নির্বাচন কোন মাসে, কখন হবে সে বিষয়ে তত্ত্বাবধায়ক সরকারকে একটি রোডম্যাপ ঘোষণা করতে হবে। জাতিকে অবশ্যই আশ্বস্ত করতে হবে যে, নিরপেক্ষ ও সুষ্ঠু নির্বাচনের মাধ্যমে একটি গণতান্ত্রিক সরকার উপহার দেওয়াই এ সরকারের মূল কাজ।
শেখ হাসিনা ম্পগলবার বাংলাদেশ সময় রাত সাড়ে ১১টা থেকে দেড়টা পর্যন্ত লন্ডন স্কুল অব ইকোনমিকসের ছাত্রছাত্রীদের সঙ্গে আয়োজিত এক প্রশ্নোত্তর অনুষ্ঠানে এ মন্তব্য করেন। হাউস অব লর্ডস সদস্য ব্যারোনেস পলা উদ্দিন এ প্রশ্নোত্তর পবরাউ মডারেটরের ভূমিকা পালন করেন।
এদিকে শেখ হাসিনা আগামী ৬ মে ঢাকার উদ্দেশে লন্ডন ত্যাগ করবেন বলে জানা গেছে। সাবেক প্রধানমন্ত্রীর সফরসঙ্গী আওয়ামী লীগের সহ-আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক আবদুস সোবহান গোলাপ সমকালকে জানান, ৬ মে রাতে আমিরাত এয়ারলাইন্সে নেত্রী হিথরো থেকে ঢাকার উদ্দেশে রওনা দেবেন। যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সৈয়দ কাশেম অবশ্য জানান, মধ্যপ্রাচ্যের একটি এয়ারলাইন্সে নেত্রী হিথরো ছাড়বেন ঠিকই, তবে তা আমিরাত এয়ারলাইন্স কি-না তা এখনো বলা যাচ্ছে না। তবে যে এয়ারলাইন্সেই নেত্রী দেশে যান, তা ঢাকায় পপৌঁছবে ৭ মে সকাল ১০টার মধ্যে। শেখ হাসিনার সঙ্গে লন্ডন থেকে ঢাকা যাচ্ছেন যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগের বেশ কয়েকজন নেতা। তারা বাংলাদেশে কয়েকদিন অবস্থান শেষে লন্ডনে ফিরে দেশের সর্বশেষ পরিস্থিতি অবহিত করবেন প্রবাসীদের।
লন্ডন স্কুল অব ইকোনমিক্সের ছাত্রছাত্রীদের বিভিন্ন প্রশ্নের জবাবে শেখ হাসিনা বলেন, আমরা চাই এ সরকার সফল হোক। শুরু থেকেই আমরা এ সরকারকে সমর্থন দিয়ে যাচ্ছে। এখনো দিতে চাই। তিনি বলেন, সরকারকে পরিষ্কারভাবে জাতিকে আশ্বস্ত করতে হবে যে, নিরপেক্ষ ও সুষ্ঠুু নির্বাচনের মাধ্যমে একটি গণতান্ত্রিক সরকার উপহার দেওয়াই তাদের মূল কাজ। তিনি বলেন, গণতান্ত্রিক সরকার ছাড়া কোনো দেশ চলতে পারে না। তত্ত্বাবধায়ক সরকারের দুর্নীতিবিরোধী অভিযানের প্রশংসা করে শেখ হাসিনা বলেন, দুর্নীতিবিরোধী অভিযান একটি চলমান প্রক্রিয়া। শুধু এ সরকার নয়, প্রতিটি নির্বাচিত সরকারকেও এটি অব্যাহত রাখতে হয়। তবে দুর্নীতিবিরোধী অভিযানের নামে নিরপরাধ কেউ যাতে হয়রানির শিকার না হয়, তাও লক্ষ্য রাখতে হবে। এ ক্ষেত্রে সরকার বিতর্কের ঊধের্্ব নয় বলে মন্তব্য করেন সাবেক প্রধানমন্ত্রী।
রাজনীতিতে পরিবারতন্ত্র বিষয়ক এক প্রশ্নের জবাবে শেখ হাসিনা বলেন, রাজনীতিকে পারিবারিকীকরণে আওয়ামী লীগ বিশ্বাস করে না। তার রাজনীতিতে আসার প্রেক্ষাপট র্বণনা করে তিনি বলেন, আওয়ামী লীগের নেতা-কর্মীরাই সর্বসম্মতভাবে তাকে রাজনীতিতে নিয়ে এসেছিলেন। এখানে তিনি বঙ্গবন্দুর কন্যা হিসেবে নয়, গণতান্ত্রিক পদ্ধতিতে নেতা-কর্মীদের মনোনয়নে রাজনীতিতে এসেছেন। সাবেক প্রধানমন্ত্রী বলেন, আমি প্রধানমন্ত্রী থাকাকালে আমার বোন বা ছেলেমেয়েকে তো এমন কোনো সুযোগ-সুবিধা দিইনি যে আজকে পারিবারিকীকরণের অভিযোগে আমাকে অভিযুক্ত হতে হবে। তিনি বলেন, নেতা-কর্মীরা না চাইলে আমি এখনো রাজনীতি থেকে সরে দাঁড়াতে রাজি আছি।

উলেল্গখ্য, লন্ডন স্কুল অব ইকোনমিক্সের ছাত্রছাত্রীদের এ ধরনের অনুষ্ঠানে বিভিন্ন দেশের রাজনীতিকরা অংশ নিয়ে থাকেন।

মঙ্গলবারও শেখ হাসিনা লন্ডনে ব্যস্ত সময় কাটিয়েছেন। দুপুরে হাউস অব কমন্সে তিনি বৈঠক করেন ব্রিটিশ ক্রীড়ামন্ত্রী রিচার্ড কোবহান এমপির সঙ্গে। উত্তর ইংল্যান্ডের শেফিল্ড এলাকার এই এমপির স্থানীয় বাংলাদেশি কমিউনিটির সঙ্গে রয়েছে ঘনিষ্ঠ সম্পর্ক। বৈঠকে শেখ হাসিনার সঙ্গে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন শেখ রেহানা, যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগ সভাপতি সামসদু্দিন খান, সহ-সভাপতি জালাল উদ্দিন প্রমুখ। বৈঠকে তার দেশে ফেরার নিষেধাজ্ঞার প্রতিবাদে ব্রিটিশ এমপিদের সোচ্চার হওয়ার জন্য শেখ হাসিনা তাকে ধন্যবাদ জানান। ব্রিটিশ মন্ত্রী শেখ হাসিনাকে আশ্বস্ত করে বলেন, বাংলাদেশে দ্রুত গণতান্ত্রিক শাসন ফিরে আসার ব্যাপারে ব্রিটিশ সরকারের প্রভাব কাজে লাগাতে তারা তাদের চেষ্ঠা অব্যাহত রাখবেন।
এদিকে আজ বুধবার বাংলাদেশ সময় রাত ১২টা থেকে ২টা পর্যন্ত শেখ হাসিনা বক্তব্য রাখবেন স্কুল অব ওরিয়েন্টাল অ্যান্ড আফিদ্ধকান স্টাডিজ (সোয়াস) আয়োজিত একটি আন্তর্জাতিক মানবাধিকার বিষয়ক সেমিনারে। এতে কয়েকজন ব্রিটিশ এমপি, মন্ত্রী ও আন্তর্জাতিক খ্যাতিসল্ফঙ্ন্ন মানবাধিকার কর্মীর বক্তব্য রাখার কথা রয়েছে। ৩ মে সাবেক প্রধানমন্ত্রী সাক্ষাৎ করতে পারেন কমনওয়েলথ মহাসচিব ডন ম্যাককিননের সঙ্গে।

৩ মে' ২০০৭
Link to Article

0 comments:

Post a comment

Popular Posts